সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১:৫৩ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদঃ
আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচনে রাজাপুর উপজেলায় সদস্য পদে জমজমাট প্রচারণা আয়ারল্যান্ডকে হারিয়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ পঞ্চগড়ে ট্রলারডুবি: মৃত বেড়ে ২৫ সান্তাহারে এ্যাম্পলসহ যুবক গ্রেপ্তার ১ কড়া নাড়ছে দুর্গাপূজা, শেষ সময়ে বগুড়ায় তুলির রঙে রঙিন হচ্ছে প্রতিমা বগুড়ায় ৩৫০০ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার- ২ মাহমুদুল হাসান সোহাগের ব্যক্তিগত উদ্যোগে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরন আজ আমার শেষ দিন এই দেশে, ফেসবুক স্ট্যাটাস লিখে যুবকের আত্মহত্যা মুন্সীগঞ্জে যুবদল কর্মী শাওন নিহতের প্রতিবাদে বগুড়ায় বিক্ষোভ সমাবেশ এবার দুর্গাপূজা ৩২১৬৮ মণ্ডপে কোভিডে আরও ৪ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৫০ সরকারি ব্রজমোহন কলেজ মহাত্না অশ্বীনি কুমার (ডিগ্রি) হলে বড় দূর্ঘটনা আতংকে শিক্ষার্থীরা শিল্পীর তুলির টানে ফুটে উঠছে দেবী দুর্গার রূপ!! বগুড়ায় কাঁচাবাজারে অভিযানে চার ব্যবসায়ীর জরিমানা পুলিশের বাধা উপেক্ষা করে সান্তাহারে বিএনপি’র সমাবেশ পাশবিকতা হাত থেকে রক্ষা পেল না প্রতিবন্ধী কিশোরী হাজরে আসওয়াদ: যেভাবে সাদা পাথর কালো হলো বহুমাত্রিক সম্পর্কের রোল মডেল ভারত-বাংলাদেশ ফুটবলে এবার বাংলাদেশের ছেলেদের দুর্দান্ত সাফল্য রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর
দুই নিত্যপণ্যের দাম নির্ধারণ করে দিল বাণিজ্য মন্ত্রণালয়

দুই নিত্যপণ্যের দাম নির্ধারণ করে দিল বাণিজ্য মন্ত্রণালয়

দুইটি নিত্যপণ্যের মিলগেট, পরিবেশক ও সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য নির্ধারণ করে দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। সরকার নির্ধারিত এ দাম আগামী রোববার (২৫ সেপ্টেম্বর) থেকে কার্যকর করা হবে। বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) এক বিজ্ঞপ্তিতে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানিয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, এখন থেকে ১ লিটার পাম সুপার খোলা তেলের মিলগেট দাম হবে ১২৮ টাকা, পরিবেশক মূল্য ১৩০ ও খুচরা পর্যায়ে ১৩৩ টাকায় বিক্রি করতে হবে।

১ কেজি পরিশোধিত চিনির মিলগেট মূল্য হবে ৭৯ টাকা, পরিবেশক পর্যায়ে ৮১ টাকা ও সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য হবে ৮৪ টাকা। এছাড়া প্যাকেটজাত ১ কেজি পরিশোধিত চিনির মিলগেট দাম হবে ৮২ টাকা, পরিবেশক মূল্য ৮৪ টাকা ও সর্বোচ্চ খুচরা মূল্য হবে ৮৯ টাকা।

আগে প্রতি লিটার পাম তেলের দাম ছিল ১৪৫ টাকা এবং প্রতি কেজি চিনির দাম ছিল ৯৫ টাকা। অর্থাৎ লিটারে পাম তেলের দাম কমেছে ১২ টাকা এবং কেজিতে প্যাকেটজাত চিনির দাম কমেছে ৬ টাকা।

বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড ট্যারিফ কমিশনের সুপারিশ অনুযায়ী অত্যাবশ্যকীয় পণ্য নিয়ন্ত্রণ আইন, ১৯৫৬ অনুসারে এ দাম নির্ধারণ করা হয়েছে।

এদিকে খাদ্যপণ্যের দাম নাগালের মধ্যে রাখতে প্রয়োজনে আমদানি করার পক্ষপাতী বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, আমরা শুধু সয়াবিন তেল ও চিনির দাম বেঁধে দিতে পারি। বাকি পণ্যের দাম কৃষি মন্ত্রণালয় ঠিক করবে। এ বিষয়ে আইনি ক্ষমতা তাদের দেয়া হয়েছে।

গত ৩০ আগস্ট বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্য, সরবরাহ ও বাজার পরিস্থিতি পর্যালোচনা সংক্রান্ত সভায় কয়েকটি নিত্যপণ্যের দাম নির্ধারণ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছিল।

তখন জানানো হয়েছিল, ১৫ দিনের মধ্যে ট্যারিফ কমিশন এসব পণ্যের দেশীয় ও আন্তর্জাতিক বাজার পরিস্থিতি মূল্যায়ন করে একটা যৌক্তিক মূল্য ঘোষণা করবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply




মালিকানা স্বত্ব © এমএমবি নিউজ ২৪- ২০২১
ওয়েবসাইটের লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়াও ব্যবহার করা যাবে। তবে সূত্র এমএমবি নিউজ ২৪ দেয়ার অনুরোধ রইল।
 
বাংলা English